তিতাস নদীর তীরে শিশু-কিশোরদের জন্য ‘নোঙর পাঠাগার’ উদ্বোধন

ব্রাহ্মণবাড়িয়া, 13 November 2021, 431 বার পড়া হয়েছে,
আদিত্ব্য কামাল : ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের শিমরাইলকান্দি তিতাস নদীর তীর ঘেঁষে, চমৎকার মনোরম পরিবেশে রাজঘাট ক্যাফে প্রাঙ্গণে শিশু-কিশোরদের জন্য ‘নোঙর পাঠাগার’ উদ্বোধন করা হয়েছে।

শুক্রবার সকাল ১০টায় নোঙর ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর শহরের তিতাস বিধৌত শিমরাইলকান্দিস্থ রাজঘাটে ব্যতিক্রমধর্মী পাঠশালাটি শিশুদের জন্য উদ্বোধন করা হয়।

অনুষ্ঠানে স্থানীয় শতাধিক শিশুর উপস্থিতিতে বক্তারা শিশুদের নিয়েই মেতে ছিলেন। নোঙর ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সভাপতি শামীম আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানের শুরুতে মুঠো ফোনে নোঙর কেন্দ্রীয় সভাপতি সুমন শামস শিশু ও আগত অতিথিদের শুভেচ্ছা জানান। স্বাগত বক্তব্য দেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক শিক্ষানবীশ আইনজীবি খালেদা মুন্নী। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ও উদ্বোধক ছিলেন সাহিত্য একাডেমির সভাপতি কবি জয়দুল হোসেন ও প্রধান আলোচক অধ্যাপক মানবর্দ্ধন পাল।

এছাড়াও বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা যুবলীগের সভাপতি এড. শাহানুর ইসলাম, সাহিত্য একাডেমির সিনিয়র সহসভাপতি মানিক রতন শর্মা, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা খেলাঘর সাধারণ সম্পাদক নীহার রঞ্জন সরকার, সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি দীপক চৌধুরী বাপ্পী, জেলা উদীচীর সিনিয়র সহসভাপতি ফারুক আহমেদ, শিমরাইলকান্দির বিশিষ্ট সমাজসেবক দানা মিয়া, মাসিক তিতাস বার্তা পত্রিকার সম্পাদক এমএ মতিন শানু, কবি এম এ হানিফ, অংকুর শিশু-কিশোর সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি আনিসুল হক রিপন, এড. হুমায়ুন কবির, সময় টেলিভিশনের পূর্বাঞ্চলীয় ব্যুরো প্রধান উজ্জ্বল চক্রবর্তী, উদীচীর সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌস রহমান, স্পার্ক ইভেন্ট এন্ড এক্টিভিটস ম্যানেজমেন্টের চেয়ারম্যান শাহাদাত হোসেন, নোঙর ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটির তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক মোশারফ হোসেন, কোষাধক্ষ শিপন কর্মকার, প্রচার সম্পাদক সোহেল খান প্রমূখ।

অনুষ্ঠান সমন্বয় করেন নোঙর জেলা কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুজ্জামান খান টিটু ও জেলা সদস্য সাইদুর রহমান জুয়েল। নোঙর পাঠাগার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, শিশুরা দেশের ভবিষ্যৎ, একটা জাতি গঠন করতে হলে শিশুদেরকে সুশিক্ষায় শিক্ষিত করা আমাদের নৈতিক দায়িত্ব। বর্তমানে শিশুরা মোবাইলের প্রতি যেভাবে আসক্তি হয়েছে তা খুবই দুঃখজনক। তাদেরকে মোবাইলের আসক্তি থেকে ফিরিয়ে আনতে হলে বইয়ের বিকল্প নেই। আর এই বইয়ের মুল উৎস পাঠাগার। নদী নিরাপত্তার সামাজিক সংগঠন নোঙর ব্রাহ্মণবাড়িয়া যে উদ্যোগটি নিয়েছে তা সত্যিই প্রশংসনীয়। নোঙরের মত শহরের অন্যান্য সংগঠনও শিশুদের মেধা বিকাশের জন্য এগিয়ে আসতে হবে। তাহলেই আমরা ভাল একটা জাতি উপহার প্রত্যাশা করতে পারবো।

বক্তারা আরো বলেন, নোঙর যেভাবে নদী, খাল দখলদারদের বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছে তাদের মত আমাদের রাজনৈতিক, সামাজিক ব্যক্তিবর্গরাও এগিয়ে আসতে হবে। অনুষ্ঠানে নোঙর পাঠাগারে শিশুদের জন্য বই উপহার প্রদান করেন নোঙর জেলা সদস্য নাফিজ আহমেদ সেলিম, চেতনায় স্বদেশ গণগ্রন্থাগারের সভাপতি আমির হোসেন, কবির কলমের সভাপতি মনিরুল ইসলাম শ্রাবণ ও সহসভাপতি হুমায়ুন কবির। অনুষ্ঠানে মৌমিতা মর্মী, নাজিফা আহমেদ পিয়া, নাজিফা, ইলমা ও লামিয়া ছড়া আবৃত্তি পরিবেশন করে।