কসবায় মুক্তিযোদ্ধা ভাতা বঞ্চিত স্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন

ব্রাহ্মণবাড়িয়া, 5 September 2021, 235 বার পড়া হয়েছে,
নিজস্ব প্রতিবেদক : কসবায় সৎছেলের চক্রান্তের শিকার হয়ে স্বামীর ভাতা ও সম্পতি থেকে বঞ্চিত হওয়ার অভিযোগ করেছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃত মনির আহাম্মদ খানের (বীরপ্রতীক) দ্বিতীয় স্ত্রী আখলিমা আক্তার। গতকাল শনিবার দুপুরে উপজেলার দেলী গ্রামে তার বাড়িতে সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করেন তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে আখলিমা আক্তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, মনির আহাম্মদ খান প্রথম স্ত্রী ২০০৬ সালে মৃত্যুর পর ২০০৮ সালে তাকে বিয়ে করেন। ২০১৩ সালে মারা যান মনির আহাম্মদ। মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যুর পর সৎছেলে ইমরান খান কৌশলে আখলিমার কাছ থেকে বাবার পেনশন বইসহ যাবতীয় কাগজপত্র নিয়ে যান। পরে স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধাদের সহযোগিতায় স্বামীর ওয়ারিশ হিসেবে ২০১৬ সাল থেকে ভাতার অংশ পেতে থাকেন। খেতাবপ্রাপ্তদের ভাতা মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ট্রাস্ট থেকে উত্তোলনের জন্য মন্ত্রণালয় থেকে ঘোষণা এলে ২০২০ সালের নভেম্বর মাস থেকে অজ্ঞাত কারণে আখলিমা আক্তারের ভাতা বন্ধ হয়ে যায়। তিনি অভিযোগ করেন, ইমরান খান ট্রাস্টের অসাধু কর্মকর্তাদের যোগসাজশে তার স্বামীর ভাতা উত্তোলন করছে।

এ বিষয়ে ইমরান খান দাবি করেন, তার পরিবারের বিরুদ্ধে এগুলো ষড়যন্ত্র। তবে তার বাবার দ্বিতীয় স্ত্রী আছে বলে তার জানা নেই।